নতুন বইয়ের গন্ধে নতুন উদ্যোমে পড়াশুনা শুরু শিক্ষার্থীদের

0
466

বছরের প্রথম দিগে সব শিশুর হাতে নতুন বই। খুদে শিক্ষার্থীদের হাতে নতুন বইয়ের ছড়াছড়ি। শিক্ষার্থী আর অভিভাবক সবার মুখেই হাসি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার আমলে এ যেন এক নীরব শিক্ষা বিপ্লব।

বছরের প্রথম দিগে নতুন বইয়ের গন্ধে মাতোয়ারা শিশুমন। প্রায় সোয়া ৪ কোটি শিক্ষার্থীর সঙ্গে বই আনন্দে মেতেছে গোটা দেশ।

কেন্দ্রীয়ভাবে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে এ উৎসবের আয়োজন করা হয়। সেখানে হাজারো শিক্ষার্থীর উপস্থিতিতে চলছে বই উৎসব।

মন্ত্রী, সাংসদ, সচিব ছাড়াও উৎসবে শিক্ষার্থীদের উৎসাহ দিতে উপস্থিত হয়েছেন ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান। উৎসবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আশপাশের এলাকাসহ রাজধানীর বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা শিক্ষক ও অভিভাবকদের সঙ্গে এসে নতুন বই হাতে বাড়ি ফিরছে।

অন্যদিকে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে ঢাকার অদূরে সাভারের অধরচন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয়ে মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের বই বিতরণ উৎসবের মূল অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। সেখানে উপস্থিত আছেন শিক্ষামন্ত্রী ড. দীপু মনি। সকাল থেকে শিক্ষার্থীদের হাতে বই তুলে দিচ্ছেন তিনি।

ঢাকার ছাড়াও সারাদেশের সোয়া চার কোটিরও বেশি শিক্ষার্থীকে বছরের প্রথম দিনেই নতুন বই দেওয়া হচ্ছে। আর নতুন বই পেয়ে উচ্ছ্বসিত শিক্ষার্থীরা।

বই নিতে অভিভাবকদের সঙ্গে সাতসকালেই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে আসেন অনেক খুদে শিক্ষার্থী। সকাল নয়টার মধ্যেই তিল ঠাঁই নেই মাঠে। কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায় মাঠ। শিশুদের কলকাকলিতে মুখর হয়ে উঠে পুরো মাঠ। সঙ্গে আছেন হাজারো অভিভাবক। সবার প্রতীক্ষা কখন শুরু হবে পাঠ্যবই বিতরণ।

অতিথিদের বক্তব্য দেওয়ার পরই শিশুদের মাঝে বই বিতরণ শুরু হয়। কলরব পড়ে গেল হাজার হাজার শিশুর মধ্যে। সবাই ছুটে গেল মঞ্চের দিকে। তবে শেষ পর্যন্ত সুশৃঙ্খলভাবেই শিশুরা হাতে নিয়েছে নতুন ক্লাসের নতুন বই।

একসেট বই হাতে নিয়েই সঙ্গে আসা বাবা-মায়ের দিকে ভোঁ দৌড়। বেশিরভাগ শিশুকে দেখা গেছে পরম যত্নে নতুন বই বুকে চেপে রাখতে। কেউ কেউ নতুন বই হাতে নিয়ে ছবি তুলেছে। এমন করেই গতকাল সকালে আনন্দের ভেলায় ভেসেছে সারাদেশের সোয়া চার কোটি শিশু। নতুন বইয়ের ঘ্রাণ ছড়িয়েছে দেশের প্রতিটি বিদ্যালয়ের আঙিনায়। নতুন শ্রেণিতে উঠেই শিশুরা পেয়েছে নতুন পাঠ্যবই।

রাজধানীর পাশাপাশি সারা দেশের সব স্কুলেই একইভাবে পালিত হচ্ছে বই উৎসব। সকালে সেজেগুজে শিশুরা দল বেধে যায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে। বই হাতে গ্রামের পথে নতুন বই হাতে শিশুদের পথচলার দৃশ্য দেখাও নির্মল এক আনন্দ।

নতুন বই নিতে সিলেটের প্রতিটি বিদ্যালয়ে ছিল উৎসবের আমেজ। বই বিতরণকে ঘিরে স্কুলগুলোতে ছিল উৎসমুখর পরিবেশ। এনিয়ে স্কুলগুলোতেও আয়োজন করা হয় নানা অনুষ্ঠানের।

শিক্ষার্থীরা নতুন বই পেয়ে খুশিতে নেচে গেয়ে বেড়াচ্ছে স্কুলের মাঠে। অনেকেই আবার বই উল্টিয়ে কবিতা ও গল্প পড়া শুরু করে দিয়েছে।

সরকারি অগ্রগামী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী রায়হানা আক্তার জানায়, ‘ক্লাস শুরু হওয়ার আগেই নতুন বই পেয়ে গেছি। নতুন বইয়ের গন্ধে নতুন উদ্যোমে পড়াশুনা শুরু করবো।

২০০৯ সালে ক্ষমতায় এসে আওয়ামী লীগ সরকার প্রাথমিকের সব শিক্ষার্থীর জন্য বিনামূল্যে বই বিতরণ কর্মসূচি চালু করে। পরে মাধ্যমিকের শিক্ষার্থীদেরও বই দেয়া শুরু হয়।

চলতি বছর চার কোটি ২৬ লাখ ১৯ হাজার শিক্ষার্থীর জন্য ৩৫ কোটি ৩১ লাখ ৪৪ হাজার নতুন বই বিতরণ করা হচ্ছে। এর মধ্যে প্রাথমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের জন্য ১০ কোটি ৫৪ লাখ ২ হাজার ৩৭৫টি বই এবং মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের জন্য ২৪ কোটি ৭৭ লাখ ৪২ হাজার ১৭৯টি বই বিনামূল্যে বিতরণ করা হচ্ছে।

মন্তব্য দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here